প্রাথমিক বিদ্যালয়ে বার্ষিক মুল্যায়ন পদ্ধতি প্রসঙ্গে অধিদপ্তরের নির্দেশনা ও নমূনা ছক

প্রাথমিক বিদ্যালয়ে বার্ষিক মুল্যায়ন পদ্ধতি প্রসঙ্গে জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠাপুস্তক বোর্ড এবং প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর নতুন মূল্যায়ন পদ্ধতি গ্রহণের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। আজকে আমরা প্রাথমিক শিক্ষার্থীদের বার্ষিক মূল্যায়ন পদ্ধতি নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করবো।

প্রাথমিক বিদ্যালয়ের বার্ষিক মুল্যায়ন

উপর্যুক্ত বিষয় ও সুত্রক্তো স্মারকের বরাতে জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠাপুস্তক বোর্ড (এনসিটিবি) তাদের মতামতে জানিয়েছে যে, জাতীয় শিক্ষাক্রম রূপরেখা ২০২১ এ প্রাক-প্রাথমিক হতে দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত অনুমোদিত মূল্যায়ন নীতিমালায় প্রাথমিক স্তর থেকে এসএসসি বা মাধ্যমিক পরীক্ষার পূর্বে কোনো ধরণের পাবলিক পরীক্ষা অর্থাৎ পিইসিই, জেএসসি বা জেডিসি পরীক্ষা গ্রহণ না করার সুপারিশ করা হয়েছে। 

জাতীয় শিক্ষাক্রস রূপরেখা ২০২১ ও পরিমার্জিত শিক্ষাক্রমের আলোকে ২০২৩ শিক্ষাবর্ষ থেকে ১ম শ্রেণির কোন প্রান্তিক পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে না। তবে প্রবর্তিত ধারাবাহিক মুণল্যায়নের উপর ভিত্তি করে প্রতি প্রান্তিকের ফলাফল প্রদান করা হবে। 

এছাড়াও ২০২৪ শিক্ষাবর্ষ থেকে ২য় ও ওয় শ্রেণিতে নতুন বই প্রবর্তন সাপেক্ষে

শতভাগ ধারাবাহিক মূল্যায়ন ব্যবস্থা এবং ২০২৫ শিক্ষাবর্ষে হতে ৪র্থ ও ৫ম শ্রেণিতে ধারাবাহিক ও সামষ্টিক মূল্যায়নের সংমিশ্রণে মূল্যায়ন ব্যবস্থা থাকবে। 

২০২৩ সালে ধারাবাহিক মূল্যায়ন প্রবর্তনের পূর্বে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রচলিত পরীক্ষা তথা মূল্যায়ন পদ্ধতি চলমান থাকবে। 

এ ক্ষেত্রে নিয়োক্ত নির্দেশনাবলী অনুসরণযোগ্য:

(ক) বাংলা ও ইংরেজি বিষয়ে শোলা, বলা, পড়া এবং লেখা বিষয়গত নির্দেশনা মোতাবেক শিক্ষার্থীর দক্ষতা পরিমাপ করতে হবে। 

পড়া ও লেখা শ্রেণি পরীক্ষার মাধ্যমে দক্ষতা পরিমাপ করতে হবে।

শিক্ষক বিদ্যালয় খোলার তারিখ হতে যতগুলো শ্রেণি পরীক্ষা গ্রহণ করেছেন ভার মধ্যে যে কয়টিতে সর্বোচ্চ নম্বর পেয়েছে এমন পরীক্ষার ৫টির নম্বর গণনা করবেন। 

প্রত্যেকটি শ্রেণি পরীক্ষায় ২০ নম্বরের উপর পরীক্ষা গ্রহণ করতে হবে।

(খ) গণিত বিষয়ে গাণিতিক ধারণা, প্রক্রিয়াগত ধারণা এবং সমস্যা সমাধানের উপর লিখিত শ্রেণি পরীক্ষা গ্রহণ করতে হবে।  এ ধরণের পরিমাপ শিক্ষকগণ এতদিন করে এসেছেন। 

সুতরাং শিক্ষক বিদ্যালয় খোলার তারিখ হতে যতগুলো শ্রেণি পরীক্ষা গ্রহণ করেছেন তার মধ্যে যে কয়টিতে সর্বোচ্চ নম্বর পেয়েছে এমন পরীক্ষার ৫টির নম্বর গণনা করবেন। 

প্রত্যেকটি শ্রেণি পরীক্ষায় ২০ নম্বরের উপর পরীক্ষা গ্রহণ করতে হবে।

(গ) বিজ্ঞান, বাংলাদেশ ও বিশ্ব পরিচয় এবং অন্যান্য বিষয়সমূহে বিষয়গত জ্ঞান, বৈজ্ঞানিক প্রক্রিয়ার জ্ঞান, দৃষ্টিভঙ্গি ও মূল্যবোধ, সামাজিক ও নৈতিক মুল্যবোধ ও অনুশাসন প্রভৃতি পরিমাপের উপর বিদ্যালয় খোলার তারিখ হতে যতগুলো শ্রেণি পরীক্ষা গ্রহণ করেছেন তার মধ্যে যে কয়টিতে সর্বোচ্চ নম্বর পেয়েছে এমন পরীক্ষার ৫টির নম্বর গণনা করবেন। 

প্রত্যেকটি শ্রেণি পরীক্ষায় ২০ নম্বরের উপর পরীক্ষা গ্রহণ করতে হবে।

ঘ) প্রত্যেকটি বিষয়ের শ্রেণি পরীক্ষাসমূহের মোট নম্বরের (৫টি) 8০% এবং বাকী ৬০ নম্বরের উপর ৩য় প্রান্তিক পরীক্ষা গ্রহণ করতে হবে। এ শ্রেণি পরীক্ষাসমূহ ও ওয় প্রান্তিকের পরীক্ষার নম্বর যোগ করে ২০২২ এর শিক্ষার্থীর অগ্রগতি প্রতিবেদন প্রণয়ন করতে হবে। 

বাংলাদেশের সকল বিদ্যালয়ে এ পরীক্ষা একটি সুনির্দিষ্ট তারিখে অনুষ্ঠিত হবে।

শিক্ষার্থীর অগ্রগতি প্রতিবেদন প্রণয়ন করার পর প্রত্যেক বিদ্যালয় তাদের নিজ নিজ বিদ্যালয়ের ফলাফল ঘোষণা করবেন এবং শিক্ষার্থীর অভিভাবকের নিকট এই ফলাফল তুলে দিবেন।

শিক্ষার্থীর এই শিখন অগ্রগতির সমন্থিত রেকর্ড প্রত্যেক বিদ্যালয়ে সংরক্ষণ করতে হবে।

এমতাবস্থায়, জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠাপুন্তক বোর্ড এর উল্লিখিত মতামতের ভিন্তিতে চলতি ২০২২ সালে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ১ম শ্রেণি হতে ৫ম শ্রেণি পর্যন্ত প্রচলিত পরীক্ষা তথা মূল্যায়ন পদ্ধতি অনুসরণ পূর্বক প্রেরিত মুল্যায়ন ছক অনুযায়ী মূল্যায়ন কার্যক্রম পরিচালনার জন্য নির্দেশক্রমে অনুরোধ করা হলো।

মূল্যায়ন ছকঃ 

প্রাথমিক বিদ্যালয়ে বার্ষিক মুল্যায়ন পদ্ধতি প্রসঙ্গে অধিদপ্তরের নির্দেশনা ও নমূনা ছক

Read More

প্রাথমিক বিদ্যালয়ের বার্ষিক মুল্যায়ন পদ্ধতি ২০২২ উদাহারণ সহ

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে বার্ষিক মুল্যায়ন ২০২৩

উপর্যুক্ত বিষয় ও সুন্রের পরিপ্রেক্ষিতে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সংঘুক্ত পত্রের নির্দেশনাসমূহ ও শিক্ষার্থীর শিখন অগ্রগতির প্রতিবেদন-২০২২ (ছক) যথাযথভাবে অনুসরণ করার জন্য সংশ্লিষ্ট সকলকে অনুরোধ করা হলো।

উল্ল্যেখ্য: মন্ত্রনালয়ের পত্রের অনুচ্ছেদ (ঘ) অনুসারে বাংলাদেশের সকল বিদ্যালয়ে এ পরীক্ষা গ্রহণের তারিখ প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর থেকে পরবর্তীতে অবহিত করা হবে।

বার্ষিক মুল্যায়ন অগ্রগতি প্রতিবেদন নমুনা ছকঃ

প্রাথমিক বিদ্যালয়ের বার্ষিক মুল্যায়ন পদ্ধতি ২০২২ উদাহারণ সহ

 

এছাড়া শিক্ষা বিষয়ক সকল আপডেট সহ DPE NEWS, Primary Result Update 2022, DSHE News Update জানতে আমাদের হোমপেজে ভিজিট করুন। শিক্ষা নিউজ সবার আগে পেতে ফলো করুন আমাদের ওয়েবসাইট।

About admin

Check Also

IPEMIS এ অনুমোদিত শিক্ষক পদ সংখ্যা সংশোধন

প্রাথমিকের IPEMIS এ অনুমোদিত শিক্ষক পদ সংশোধন করার পদ্ধতি

IPEMIS এ অনুমোদিত শিক্ষক পদ সংশোধন করবেন কিভাবে?  এটি নিয়ে অনেকেই দ্বিধায় পড়ে যান।  আপনার …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *